Home আইন-আদালত সুপ্রিম কোর্টে আইনজীবীদের ভোট চলছে
আইন-আদালত - মার্চ ১০, ২০২১

সুপ্রিম কোর্টে আইনজীবীদের ভোট চলছে

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির (সুপ্রিম কোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশন) কার্যনির্বাহী কমিটির ২০২১-২০২২ বর্ষের নির্বাচনে দুই দিনব্যাপী ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে।

বুধবার (১০ মার্চ) সকাল ১০টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। মোট ১৪টি পদের প্রতিটিতে একটি করে ভোট দিতে পারবেন আইনজীবীরা। ৬১টি ভোট দিতে পারবেন।

ভোটের বুথে মোবাইল, ক্যামেরা এবং অন্য কোনো ডিভাইস নিয়ে প্রবেশ নিষেধ রয়েছে। সকাল ১০টা থেকে শুরু হওয়া ভোট দুপুর ১টা থেকে ২টা পর্যন্ত, এরপর এক ঘণ্টা বিরতি দিয়ে চলবে বিকাল ৫টা পর্যন্ত। বৃহস্পতিবার (১১ মার্চ) সকাল ১০টা থেকে আবারও ভোটগ্রহণ শুরু হব।

Supreme-3.jpg

এবারের নির্বাচনে সুপ্রিম কোর্টের ৭ হাজার ৭২২ জন আইনজীবী তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।

নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি এ এফ এম আবদুর রহমান বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। নির্বাচন সংক্রান্ত সব ধরনের বিধি অনুসরণ করে প্রার্থীরা প্রচার-প্রচারণা চালিয়েছেন। সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সদস্য ছাড়া এখানে অন্য কারও প্রচার প্রচারণা চালানোর সুযোগ কম।

তিনি জানান, ১৪ পদে হবে এ নির্বাচন। এর মধ্যে ৭টি সম্পাদকীয় পদ এবং ৭টি কার্যনির্বাহী সদস্য পদ রয়েছে। দাখিলকৃত মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই এবং প্রত্যাহার শেষে ৫১ জন চূড়ান্তভাবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

এর মধ্যে ৭টি সম্পাদকীয় পদের বিপরীতে ২৭ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। সর্বোচ্চ পদ সভাপতি হিসেবে ৫ জন, দুটি সহ-সভাপতি পদের বিপরীতে ৬ জন, সম্পাদক পদে ৪ জন, কোষাধ্যক্ষ পদে ৪ জন এবং ২টি সহ-সম্পাদক পদের বিপরীতে ৮ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। বাকি ৭টি কার্যনির্বাহী সদস্য পদের জন্য ২৪ জন আইনজীবী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন।

নির্বাচন কমিটির আহ্বায়ক আরও জানান, বৃহস্পতিবার (১১ মার্চ) ভোটগ্রহণ শেষ হবে। এরপর ওই রাতেই ভোট গণনা করা হবে।

এ নির্বাচনে সরকারি দল আওয়ামী লীগ সমর্থিত বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের নেতৃত্বে সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ থেকে সিনিয়র অ্যাডভোকেট আবদুল মতিন খসরু সভাপতি পদে ও অ্যাডভোকেট আব্দুল আলীম মিয়া জুয়েল সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ প্যানেল সাদা প্যানেল হিসেবে পরিচিত।

Supreme-3.jpg

অপরদিকে বিএনপি ও জামায়াত সমর্থিত জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের নেতৃত্বে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য পরিষদ থেকে সভাপতি পদে অ্যাডভোকেট ফজলুর রহমান ও সম্পাদক পদে ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ প্যানেল নীল প্যানেল হিসেবে পরিচিত।

বিএনপির বিদ্রোহী প্যানেল :

এই প্যানেলে সভাপতি পদে অ্যাডভোকেট ওয়ালিউর রহমান খান এবং সম্পাদক পদে অ্যাডভোকেট মির্জা আল মাহমুদ প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এছাড়া সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট নাহিদ সুলতানা এবং অ্যাডভোকেট সাবিনা ইয়াসমিন লিপিসহ অনন্যারা লড়ছেন।

রেড প্যানেল (লাল) :

এই প্যানেল থেকে সভাপতি পদে কে এম জাবির, সম্পাদক পদে গিয়াস উদ্দিন চৌধুরীসহ আটটি পদে নির্বাচন করছেন এবং এ ছাড়াও স্বতন্ত্র থেকে একজন সভাপতি প্রার্থী নির্বাচন করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Check Also

‘প্রস্তুতি বহু আগে থেকে ছিল’

নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠনে আইন পাসের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সরকার অনেক দিন …